আলোড়ন নিউজ
Lead News সারাদেশ

নড়াইলের এক সময় যাত্রী বান্ধব ঐতিহ্যবাহী ‘গরুর গাড়ী’ কালের আবর্তে হারিয়ে যাচ্ছে

উজ্জ্বল রায়, নড়াইল প্রতিনিধিঃ নড়াইল জেলায় কালের আবর্তে হারিয়ে যাচ্ছে গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী ‘গরুর গাড়ী’।

গরুর গাড়ী এক সময় যাত্রী বান্ধব বন্ধু হিসেবে অনেকেই অখ্যায়িত করত। এক সময় গরুর গাড়ী নিয়ে ছুটে চলতেন গ্রামের পর গ্রামে। বৃদ্ধ থেকে শুরু করে যুবোগ ও মধ্যবয়সী সহ সবাই গরুর গাড়ী নিয়ে বের হতেন। গরুর গাড়ীনিজের কাজের পাশাপাশি ব্যবহার হতো বিভিন্ন মালা মল বাহনের কাজে। কিন্তু আধুনিকায়নে বিভিন্ন যানবহন বৈদ্যুতিক গাড়ীএলাকা ভরপুর। যার কারণে হারিয়ে যাচ্ছে একমাত্র উৎস রত ঐতিহ্যবাহী গরুর গাড়ী।

সরেজমিনে নড়াইল জেলা ও উপজেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে জানা যায়, তখনকার সময়ে গরুর গাড়ী মেরামতের জন্য হাট বাজারে দোকানদিয়ে বসত। এছাড়া অনেকে গ্রামের বিভিন্ন বাড়িতে গিয়ে গরুর গাড়ী মেরামত করত। কিন্তু এখন আর গরুর গাড়ী ব্যবহার না করারফলে গরুর গাড়ীর মিস্ত্রীদের এখন আর দেখা যায় না।

নড়াইল এলাকার গরুর গাড়ী চালক শিসষ,বলেন এক সময় গরুর গাড়ী ছাড়া রাতে ওদিনে চলাচল করা যেত না। কিন্তু এখন এলাকায় কোম্পানির বিভিন্ন ধরনের যনবহন বের হওয়ায় এখন আর গরুর গাড়ী প্রয়োজন হয় না।

শিক্ষক সুলতান মাহামুদ, পৌর কমিসনার মাহাবুর আলম বলেন, আগে রাতে ও দিনে বেরহলে গরুর গাড়ী ছারা অনন্য কোন যানবহন পাওয়া যেতনা। কিন্তু এখন ঘরে থেকে বেরহলে বিদ্যুৎতের গাড়ী ও অনন্য যানবহন পাওয়া যায় কারণে এখন আর গরুর গাড়ীর প্রয়োজন হয়না। এক সময় নিজের হাতে অনেক গরুর গাড়ী মেরামত করেছি। কিন্তু এখন কার সময়ে বাড়ী গাড়ী থাকলেও তা কেউ ব্যবহার করে না। এতে মেরামতের কাজ হয় না।যার কারণে এই পেশা ছাড়তে হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, সময়ের আবর্তে এক সময় গরুর গাড়ীর দেখতে যেতে হবে জাদুঘরে। নতুন প্রজন্ম হয়তো জানবেও না গরুর গাড়ীর ইতিহাস।

Related posts

শাহরাস্তিতে দিনব্যাপী বঙ্গবন্ধু শিশু- কিশোর মেলার সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত

Ashish Mallick

ঘূর্ণিঝড় ‘ফণীর’ রেকর্ড

Ashish Mallick

ট্রাম্প-কিমের দ্বিতীয় বৈঠকে ফেব্রুয়ারিতে

Ashish Mallick

Leave a Comment

* By using this form you agree with the storage and handling of your data by this website.