আলোড়ন নিউজ
Lead News সারাদেশ

মোহাম্মদ রেজাউল করিম কুড়িগ্রামের নতুন ডিসি

 এজি লাভলু, কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি: কুড়িগ্রামের নতুন ডিসি হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব মোহাম্মদ রেজাউল করিম (১৫২৫৮)। মোহাম্মদ রেজাউল করিম ২২তম বি.সি. এস. (প্রশাসনন) ক্যাডারের একজন সদস্য। তিনি জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের উপসচিব পদে নিয়োজিত ছিলেন। বাংলা ট্রিবিউনের সাংবাদিক আরিফুল ইসলা রিগ্যানের বাড়িতে মধ্যরাতে হানা ও তাকে তুলে নেওয়ার ঘটনা তদন্তে জেলা প্রশাসক (ডিসি) সুলতানা পারভীনকে প্রত্যাহার করা হয়েছে।

সোমবার (১৬ মার্চ) এ আদেশ দিয়ে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় প্রজ্ঞাপন জারি করেছে।

আরেক প্রজ্ঞাপনে কুড়িগ্রাম জেলা প্রশাসনের সিনিয়র তিন সহকারী সচিব নাজিম উদ্দিন, রিন্টু বিকাশ চাকমা ও এস এম রাহাতুল ইসলামকে প্রত্যাহার করা হয়।

জেলা প্রশাসক মোছা: সুলতানা পারভীন একটি পুকুর সংস্কার করে নিজের নামে নামকরণ করতে চেয়েছিলেন। আরিফুল ইসলাম রিগ্যান এ বিষয়ে নিউজ করার পর থেকেই তার ওপর ক্ষুব্ধ ছিলেন ডিসি। এছাড়া, স¤প্রতি জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে নিয়োগ নিয়ে ডিসি সুলতানা পারভীনের অনিয়ম নিয়েও প্রতিবেদন তৈরি করেন আরিফুল। এসময় একাধিকবার তাকে ডিসি অফিসে ডেকে নিয়ে হুমকি দেওয়া হয়।

পরে গত ১৩ মার্চ মধ্যরাতে কুড়িগ্রামের সাংবাদিক আরিফুল ইসলামকে বাড়ির দরজা ভেঙে তুলে নিয়ে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে এক বছরের জেল, শারিরীক নির্যাতন করার ঘটনায় ডিসি সুলতানা পারভীন আলোচনায় ছিলেন।

 কুড়িগ্রামের নতুন ডিসি

এ ঘটনা জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় ও মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের নজরে এলে শনিবার মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ রংপুর বিভাগীয় কমিশনারকে তদন্তের নির্দেশ দেয়। রংপুর বিভাগীয় কমিশনার অফিসের কর্মকর্তারা তদন্ত করে প্রতিবেদনের খসড়া মন্ত্রিপরিষদ বিভাগে পাঠায়। রোববার মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ ডিসির কাজে অনিয়ম পাওয়ায় তাকে প্রত্যাহারের আদেশ ও বিভাগীয় মামলার সিদ্ধান্ত নেয়।

কুড়িগ্রামের সর্বস্তরের মানুষের প্রাণের দাবি নতুন ডিসি জনাব মোহাম্মদ রেজাউল করিম যেন আইনের সুষ্ঠু প্রয়োগ করে কুড়িগ্রামের সবদিকে কড়া নজর রেখে উন্নয়নে ভূমিকা রাখে। এছাড়াও তাদের দাবি, কুড়িগ্রামের সকল প্রশাসনের দিকে কড়া নজরদারিতে রাখা এবং কোন ছাড়পোকা থাকলে যেন তাকে ছাটাই করে কুড়িগ্রামকে কলঙ্কের হাত থেকে রক্ষা করে।

কড়িগ্রাম জেলা প্রশাসকের ঘটনাটি জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় ও মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের নজরে এলে শনিবার মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ রংপুর বিভাগীয় কমিশনারকে তদন্তের নির্দেশ দেয়। রংপুর বিভাগীয় কমিশনার অফিসের অতিরিক্ত কমিশনার (অতিরিক্ত সচিব) পদমর্যাদা কর্মকর্তারা তদন্ত করে প্রতিবেদনের খসড়া মন্ত্রিপরিষদ বিভাগে পাঠায়।

Related posts

ফের নির্বাচনে জিততে শি জিনপিংয়ের কাছে মিনতি করেছেন ট্রাম্প

Ashish Mallick

পবা উপজেলা নির্বাচন: ৭৯ টি ভোটকেন্দ্রের মধ্যে ৬৮টি ঝুঁকিপূর্ণ

Ashish Mallick

রাজশাহীতে ওসি আব্দুল মোতালেব তিনি দ্ক্ষতার সাথে কাজ করছেন

Ashish Mallick

Leave a Comment

* By using this form you agree with the storage and handling of your data by this website.